আম্পায়ারের সিদ্ধান্ত চ্যালেঞ্জ করে রিভিউ নেওয়া যায় ঠিকই; কিন্তু অধিকাংশ ক্ষেত্রে মাঠের আম্পায়ারের সিদ্ধান্তই বহাল থেকে। বিশেষ করে এলবিডব্লিউর ক্ষেত্রে এমনটা বেশি ঘটতে দেখা যায়। বর্তমান রিভিউ বিধিতে আছে, আম্পায়ারের সিদ্ধান্তের সপক্ষে যদি নুন্যতম প্রমাণ পাওয়া যায়, তাহলে তৃতীয় আম্পায়ার মাঠের সিদ্ধান্তই বহাল রাখবেন। ভবিষ্যতেও মাঠের আম্পায়ারের এ ক্ষমতা থাকবে।

তবে ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি) ক্রিকেট কমিটি নতুন যে প্রস্তাবটি করেছে, তা বাস্তবায়িত হলে সিদ্ধান্ত চ্যালেঞ্জ করা দল অন্তত রিভিউর দিক থেকে ক্ষতিগ্রস্ত হবে না। ‘আম্পায়ার্স কলে’র কারণে সিদ্ধান্ত বহাল থাকলে রিভিউ থেকে যাবে। এই নিয়ম কার্যকর হলে ৮০ ওভারের পর আর কোনও রিভিউ পাবে না টিম। লন্ডনে বুধ ও বৃহস্পতি দু’দিন ধরে আইসিসির ক্রিকেট কমিটির বার্ষিক সাধারণ সভায় এই সুপারিশ করা হয়েছে।

এ প্রসঙ্গে ভারতীয় দলের কোচ ও আইসিসি ক্রিকেট কমিটির প্রধান অনিল কুম্বলের ভাষ্য, ‘গত দু’দিন ধরে অনেক ক্রিকেট নিয়ে আলোচনা হল। বিশেষ করে ক্রিকেটের নতুন কাঠামো নিয়েই আলোচনা হয়েছে। অসফল রিভিউ নিয়েও অনেক আলোচনা হল। বিশেষ করে আম্পায়ারদের চ্যালেঞ্জ করে যে রিভিউ নেওয়া হয়। যদি এটা চালু হয়, তবে ৮০ ওভারের পর কোনও রিভিউ থাকবে না। এটাই ক্রিকেট কমিটিকে প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে।’

তবে শুধু রিভিউ সিস্টেমই না, এই দু’দিনের সভায় ক্রিকেটের আইন-সংক্রান্ত আরও বেশ কিছু সুপারিশ করা হয়েছে। যার মধ্যে আছে টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে ডিসিশন রিভিউ সিস্টেম (ডিআরএস) চালু, টেস্ট ক্রিকেটে টুর্নামেন্ট বা প্রতিযোগিতা ব্যবস্থা চালু এবং অলিম্পিক গেমসে ক্রিকেটকে অন্তর্ভুক্তকরণ ইস্যু।

এছাড়া ব্যাটের সীমা সীমিতকরণ, রানআউট প্রক্রিয়ায় সংস্কার ও অসদাচরণের দায়ে আম্পায়ার কর্তৃক খেলোয়াড়দের মাঠের বাইরে পাঠিয়ে দেওয়া সংক্রান্ত আইসিসির নতুন আইনেও সম্মতি দেওয়া হয়। ক্রিকেট কমিটির সুপারিশ ও মতামত আইসিসির প্রধান নির্বাহীদের বৈঠকে আমলে নেওয়া হলে আগামী ১ অক্টোবর থেকে তা কার্যকর হবে।

সূত্র: হিন্দুস্তান টাইমস

Advertisements