এক মাসেরও বেশি সময় পর আবারও আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে মাঠে নামছে বাংলাদেশ দল। শুক্রবার ত্রিদেশীয় সিরিজের প্রথম ম্যাচে স্বাগতিক আয়ারল্যান্ডের মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ। সঙ্গী কন্ডিশন ও র‍্যাঙ্কিং ভাবনা। তবে তিন প্রস্তুতি ম্যাচে তিনশ পেরোনো সংগ্রহ, আশা যোগাচ্ছে আয়ারল্যান্ড ও নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ভালো কিছুরই।

তবুও সতর্ক বাংলাদেশ দলের নিয়মিত ওয়ানডে অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা। পা ফেলতে চান সাবধানে। তার মতে, বিদেশের মাটিতে খেলা যে কোনো দলের জন্যই কঠিন। তাই আইরিশ কন্ডিশনকে চ্যালেঞ্জ হিসেবেই মানছেন তিনি। এই সিরিজে ম্যাচ জিততে তাই নিজেদের সেরা খেলাটাই খেলতে হবে বলে জানালেন মাশরাফি।

কন্ডিশন প্রসঙ্গে মাশরাফির ভাষ্য, ‘এই সিরিজটা আমাদের জন্য বড় চ্যালেঞ্জের। ঘরের মাঠে ফুরফুর মেজাজে খেলা যায়। বিদেশের মাটিতে সেটা সম্ভব নয়। কারণ ভিন্ন কন্ডিশনে খেলা যেকোনো দলের জন্যই চ্যালেঞ্জিং। আয়ারল্যান্ড দল ভালো ক্রিকেট খেলছে। নিজেদের কন্ডিশনে কীভাবে খেলতে হয়, তা তারা ভালো জানে। সিরিজটা কঠিনই হবে। ম্যাচ জিততে সেরা খেলাটাই খেলতে হবে আমাদের।’

আয়ারল্যান্ডে পাড়ি জমানোর আগে সাসেক্সে দশ দিনের কন্ডিশনিং ক্যাম্পের অংশ হিসেবে স্থানীয় দুই ক্লাবের বিপক্ষে দু’টি প্রস্তুতি ম্যাচ খেলেছে বাংলাদেশ। দুই ম্যাচেই রানের পাহাড় গড়েছিলো বাংলাদেশ। আয়ারল্যান্ডে এসেও কন্ডিশনের সঙ্গে মানিয়ে নিতে বেলফাস্টে আরেকটি প্রস্তুতি ম্যাচে অংশ নেয় তারা। সেখানেও রান পাহাড় গড়ে বড় জয় তুলে নিয়ে আত্মবিশ্বাসের তুঙ্গেই রয়েছে মাশরাফিবাহিনী।

এ প্রসঙ্গে ৩৩ বছর বয়সী মাশরাফি বলেন, ‘ইংল্যান্ডে এসেছি ১৫ দিন আগে। প্রস্তুতি ভালোই নিয়েছি। গুরুত্বপূর্ণ খেলোয়াড়েরা সবাই ফিট আছে। যতটা পেরেছে আবহাওয়ার সঙ্গে মানিয়ে নিয়েছে। ইংল্যান্ডে যখন এসেছিলাম ঠান্ডা ছিল বেশি। এখন আবার আবহাওয়াটা একটু ভালো। আবহাওয়া এমন থাকলে আমাদের জন্য ভালোই হবে। আমাদের ১৮ খেলোয়াড় ভালোভাবে প্রস্তুতি নিয়েছে। আশা করি ভালো কিছুই হবে।’

শেষবারের মত নিজেদের ঝালিয়ে নিচ্ছেন সাব্বির-সৌম্যরা। ছবি: বিসিবি

আয়ারল্যান্ডের মাটিতে ২০১০ সালের পর ওয়ানডে খেলতে নামছে বাংলাদেশ। ইতিমধ্যে আইরিশদের বিপক্ষে দুবার হারের স্বাদও পেয়েছে বাংলাদেশ। যদিও সেই বাংলাদেশ এখন অনেক বদলে গেছে। ত্রিদেশীয় সিরিজটাকে নিজেদের জন্য খুব গুরুত্বপূর্ণ টুর্নামেন্ট আখ্যা দিয়ে গত দুই বছরের উন্নতির ধারাটা ধরে রাখার কথাও জানালেন মাশরাফি।

সেই সঙ্গে ত্রিদেশীয় সিরিজে ভালো করলে সেটার প্রভাব চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফিতেও কাজে দেবে বলে মত মাশরাফির, ‘আমাদের জন্য এই সিরিজটা গুরুত্বপূর্ণ। গত দুই বছর ধরে আমরা ভালো ক্রিকেট খেলছি। শ্রীলঙ্কা সফরেও বেশ ভালো খেলেছি। লঙ্কানদের বিপক্ষে টেস্ট, ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি ম্যাচে জয়লাভ করেছি। আয়ারল্যান্ডে ভালো করতে পারলে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফিতে তা কাজে দেবে।’

স্লো ওভার রেটের কারণে শ্রীলঙ্কা সিরিজের শেষ ম্যাচের পর বাংলাদেশ দলের ওয়ানডে অধিনায়ক মাশরাফির ওপর এক ম্যাচের নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি)। ফলে আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে প্রথম ম্যাচে মাঠে নামা হচ্ছে না তার। শুক্রবার বাংলাদেশের অধিনায়কত্ব করবেন সাকিব। সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচ থেকে আবারও নেতৃত্বভার ফিরবে নিয়মিত অধিনায়ক মাশরাফির কাঁধে।

Advertisements