শ্রীলঙ্কা দলে এখন আর কুমার সাঙ্গাকারা- মাহেলা জয়াবর্ধনে নেই। তাই বলে লঙ্কানদের হালকাভাবে নেয়ার সুযোগ নেই। তারুণ্য নির্ভর দলটিই ধারণ করতে পারে ভয়ঙ্কর রূপ। সম্প্রতি দক্ষিণ আফ্রিকা ও অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে ভালো ক্রিকেট খেলেছে লঙ্কানরা। জিতেছে টি-টোয়েন্টি সিরিজও।

পক্ষান্তরে বাংলাদেশ দল এখন বেশ অভিজ্ঞ। সাকিব আল হাসান, মুশফিকুর রহীম, তামিম ইকবাল, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের মতো অভিজ্ঞ ক্রিকেটাররা রয়েছেন এই দলে। বিদেশের মাটিতেও টাইগারদের সাম্প্রতিক পারফরম্যান্স আশা জাগিয়ানা। নিউজিল্যান্ড ও ভারতের কাছে হারলেও টেস্ট সিরিজে দারুণ লড়াই করেছে মুশফিক বাহিনী।

ওই দুই সিরিজের অভিজ্ঞতা কাজে লাগাতে পারলে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে বাংলাদেশ দল জিতবে; বাংলাদেশ দলের ম্যানেজার খালেদ মাহমুদ সুজনের এমন বিশ্বাস এমনই। শ্রীলঙ্কার উদ্দেশে উড়াল দেয়ার আগে তিনি বলেন, ‘নিউজিল্যান্ড ও ভারতের বিপক্ষে টানা দুই সিরিজে খেলে আমরা বেশ অভিজ্ঞতা অর্জন করেছি। যদি ওই অভিজ্ঞতা যথাযথভাবে কাজে লাগাতে পারি, তাহলে শ্রীলঙ্কায় ভালো কিছুই পাওয়ার সুযোগ রয়েছে আমাদের।’

শ্রীলঙ্কার মাঠে জয়ের জন্যই খেলবে বাংলাদেশ। তার জন্য অবশ্য মুশফিক-সাকিবদের কাছ থেকে সেরা ক্রিকেটটাই চাইছেন সুজন, ‘একটাই লক্ষ্য- জয়। এই লক্ষ্যেই আমরা সেখানে যাচ্ছি। আমরা আশাবাদী, আমাদের সেই সক্ষমতা (শ্রীলঙ্কাকে হারানোর) রয়েছে। ইনশাল্লাহ, যদি আমরা বেটার ক্রিকেটার খেলতে পারি; আমার বিশ্বাস- শ্রীলঙ্কায় জিতবে বাংলাদেশ।’

শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে দ্বিতীয় টেস্ট ম্যাচটি বাংলাদেশের জন্য শততম টেস্ট। মাইলফলকের ম্যাচটি স্মরণীয় করতে চাইছেন বাংলাদেশ দলের সাবেক অধিনায়ক খালেদ মাহমুদ সুজনও, ‘গোটা বাংলাদেশ শততম টেস্ট নিয়ে রোমাঞ্চিত। যতটা সম্ভব এটা ভালোভাবেই শেষ করতে চাই। মূলত আমাদের সবারই চাওয়া- স্মরণীয় কিছু নিয়ে ফেরা।’

Advertisements