16708677_766461616837079_6139613619370013067_nবাংলাদেশকে খেলায় টিকিয়ে রাখলেন মুশফিকুর রহিম। ২০৬ বলে খেলা টাইগার অধিনায়কের অপরাজিত ৮১ রানের সুবাদে এখনো লড়াই চালিয়ে যাচ্ছে বাংলাদেশ। ম্যাচের তৃতীয় দিন শেষে বাংলাদেশের সংগ্রহ ৬ উইকেটে ৩২২ রান। দিনের শেষ সেশনে মুশফিক আর মেহেদীর ৮৭ রানের জুটি হায়দরাবাদ টেস্টে ফলোঅনের রাঙানি থেকে স্বপ্ন দেখাচ্ছে বাংলাদেশকে।

সাকিব আল হাসান, মুশফিকুর রহিম এরপর মেহেদী হাসান মিরাজের অর্ধশতকে ভর করে হায়দরাবাদ টেস্টে ব্যাটফুট ঠেলে সামনে আনার চেষ্টা করছে বাংলাদেশ। দিনশেষে মুশফিক ৮১ও মিরাজ ৫১ রানে ব্যাট করছেন।

মুশফিক টেস্টে তিন হাজার রানের মাইলফলক ও মিরাজ ক্যারিয়ারের প্রথম টেস্ট অর্ধশতক তুলে নেন।

এর আগে পঞ্চম উইকেটে ১০৭ রানের জুটি গড়েন সাকিব ও মুশফিক। সাকিব নিজের অর্ধশতক তুলে নিলেেও ইনিংসটা বড় করার আগে আশ্বিনের বলে তুলে মারতে গিয়ে মিড অনে ক্যাচ দিয়ে বিদায় নেন। আউট হবার আগে সাকিব করেন ৮২ রান। আর তিন রান হলেই অর্ধশতক হবে মুশফিকের। ফলো-অন এড়াতে বাংলাদেশের দরকার আরো ১৭২ রান।

দিনের শুরুতে ২৫ রান করে তামিম ইকবাল ফেরেন রান আউট হয়ে। মুমিনুল হকও বেশিক্ষণ টিকতে পারেননি। উমেশ যাদবের বলে ফিরেছেন ১২ রান করে। ৬৪ রানে তিন উইকেট হারিয়ে বিপর্যয়ে পড়ে টাইগাররা। তবে আশা দেখান সাকিব ও মাহমুদুল্লাহ। ইশান্ত শর্মার বলে মাহমুদুল্লাহ লেগ বিফোরের শিকার হলে ভাঙে ৪৫ রানের জুটি।

পরে সাকিব ও মুশফিক মিলে ১০৭ রানের জুটি গড়েন। পরে সাব্বির এসে ১৬ রান করে জাদেজার বলে এলবিডব্লিউ এর শিকার হন।

বৃহস্পতিবার থেকে শুরু হওয়া টেস্টের প্রায় দুদিন ব্যাট করে ৬৮৭ রানের পাহাড় করে ইনিংস ঘোষণা করে ভারত। বিরাট কোহলি ২০৪, ঋদ্ধিমান সাহা অপরাজিত ১০৬, মুরলি বিজয় ১০৮, পুজারা ৮৩ ও রাহানে ৮২ রান করেন।

তাইজুল তিনটি, মিরাজ দুটি ও তাসকিন একটি উইকেট নেন।

Advertisements