টেস্ট ক্রিকেটে শেষ কথাটা যায় না বলা আগেভাগেই। এটা মেনে নিয়েও বলা যায় ক্রাইস্টচার্চ টেস্ট এখন যে জায়গায় দাঁড়িয়ে, তাতে জয়-পরাজয় আসছে। দ্বিতীয় দিন শেষে আলোচনা একটাই—জয়মাল্য পরবে কারা? নিউজিল্যান্ড, না বাংলাদেশ? দিন শেষের সংবাদ সম্মেলনেও প্রশ্নটা উঠেছে। স্বাগতিক নিউজিল্যান্ড দলের উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান টম ল্যাথামের উত্তর, এই ম্যাচে দুই দলেরই আছে জয়ের সম্ভাবনা।
দ্বিতীয় দিন শেষে টেস্টের দ্বিতীয় ইনিংসও শেষের প্রান্তে এসে দাঁড়িয়েছে। প্রথম ইনিংসে বাংলাদেশ অলআউট হয়েছে ২৮৯ রানে। ৭ উইকেটে ২৬০ রান নিয়ে দ্বিতীয় দিনের খেলা শেষ করেছে নিউজিল্যান্ড। ম্যাচ যে সাম্যাবস্থায় দাঁড়িয়ে তা স্কোর বোর্ডের দিকে তাকালেই বোঝা যায়। ল্যাথামও সেটাই বললেন, ‘আমি মনে করি ম্যাচে দুই দলের সমান সম্ভাবনা আছে।’
বৃষ্টির কারণে আজ দ্বিতীয় দিনের খেলা একটু আগেভাগেই শেষ হয়েছে। এর আগে দ্রুত তিনটি উইকেট হারিয়েছে নিউজিল্যান্ড। ৪ রানের মধ্যে ৩ উইকেট হারিয়ে ৪ উইকেটে ২৫২ থেকে ৭ উইকেটে ২৫৬ হয়ে যায় তারা। নিজের করা ৯ বলের মধ্যে এই তিন উইকেট তুলে নেন বাঁ হাতি স্পিনার সাকিব আল হাসান। ল্যাথামের দৃষ্টিতে এই তিন উইকেটই বাংলাদেশকে খুব ভালোভাবে ফিরিয়ে এনেছে ম্যাচে, ‘শেষ দিকের ওই তিন উইকেটেই ম্যাচটিকে বেশ সমান জায়গায় নিয়ে এসেছে। এতে তারা (বাংলাদেশ) একটু গতিই পেয়েছে।’
বাংলাদেশের পেসার তাসকিন আহমেদের কাছে ক্রাইস্টচার্চের উইকেট ওয়েলিংটনের চেয়ে প্রাণবন্ত। আর এই কারণেই ম্যাচে বাংলাদেশ জিততে পারে বলে ভাবতে পারছেন তিনি। ল্যাথামও বলছেন, উইকেটে বোলারদের জন্য কিছু আছে। ওয়েলিংটনের চেয়ে বেশি মুভমেন্ট আর সুইং আছে এখানে। সব মিলিয়ে আগামীকাল সকালের সেশনটা দুই দলের জন্যই বেশ গুরুত্বপূর্ণ বলে মনে করেন ল্যাথাম, ‘দুই দলের জন্যই আগামীকাল সকালের প্রথম ঘণ্টাটা গুরুত্বপূর্ণ। ৫০-এর বেশি রান নিয়ে উইকেটে হেনরি নিকোলস আছে। সে ভালো ব্যাটিংও করছে। যতটা সম্ভব আমরা যদি নিজেদের ভালো একটা অবস্থায় নিয়ে যেতে পারি তাহলে বোলিংয়ে তাদের চাপে ফেলতে পারব।’

Advertisements